বিবৃতি

১০ মার্চ ২০১৭, শুক্রবার, ১০:২০

ভারতের সাথে নিরাপত্তা ও সামরিক চুক্তি সম্পাদনের বিষয়ে গভীর উদ্বেগ প্রকাশ

প্রধানমন্ত্রী ভারতের সাথে কি ধরনের নিরাপত্তা ও সামরিক চুক্তি সম্পাদন করেছেন দেশবাসী সরকারের নিকট জানতে চায়

বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার আসন্ন ভারত সফরকালে ভারতের সাথে নিরাপত্তা ও সামরিক চুক্তি সম্পাদনের বিষয়ে গভীর উদ্বেগ প্রকাশ করে বাংলাদেশ জামায়াতে ইসলামীর সেক্রেটারী জেনারেল ডাঃ শফিকুর রহমান আজ ১০ মার্চ প্রদত্ত এক বিবৃতিতে বলেন, “বাংলাদেশের প্রধামন্ত্রী শেখ হাসিনার আসন্ন ভারত সফরকালে ভারতের সাথে কি ধরনের নিরাপত্তা ও সাময়িক চুক্তি সম্পাদন করা হচ্ছে তা দেশবাসী সরকারের নিকট জানতে চায়।

বিভিন্ন সূত্র থেকে প্রাপ্ত সংবাদে জানতে পারলাম যে, বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার আসন্ন ভারত সফরকালে ভারতের সাথে একটি নিরাপত্তা ও সামরিক চুক্তি সম্পাদন করা হচ্ছে। এ চুক্তির বিষয়ে দেশের জনগণ কিছুই জানেনা। দেশের জনগণকে অন্ধকারে রেখে ভারতের সাথে গোপনে নিরাপত্তা ও সামরিক চুক্তি সম্পাদনের ব্যাপারে দেশের জনগণ শংকিত ও উদ্বিগ্ন। ভারতের সাথে কি ধরনের নিরাপত্তা ও সামরিক চুক্তি হচ্ছে তা জানার অধিকার দেশের জনগণের রয়েছে। দেশের জনগণের মনে প্রশ্ন সৃষ্টি হয়েছে যে, সরকার কার স্বার্থে এই চুক্তি করছে?

সরকারের উচিত ভারতের সাথে নিরাপত্তা ও সামরিক চুক্তি সম্পাদনের বিষয়টি দেশের জনগণের সামনে প্রকাশ করা, যাতে দেশের জনগণ এ ব্যাপারে তাদের মতামত সুস্পষ্টভাবে প্রকাশ করতে পারে। দেশের জনগণকে অন্ধকারে রেখে গোপনে ভারতের সাথে জাতীয় স্বার্থ বিরোধী নিরাপত্তা ও সামরিক চুক্তি দেশের জনগণ কিছুতেই মানবে না।

ভারতের সাথে কি ধরনের নিরাপত্তা ও সামরিক চুক্তি সম্পাদন করা হচ্ছে তা অবিলম্বে জনগনের সম্মুখে প্রকাশ করা হোক এবং জাতীয় স্বার্থ বিরোধী কোন নিরাপত্তা ও সামরিক চুক্তি করা থেকে বিরত থাকার জন্য আমি সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষের প্রতি আহ্বান জানাচ্ছি।”