Monday, 18th January, 2021
Choose Language:

সর্বশেষ
সংবাদ
নারীদের উপর লাঠিচার্জ করা সরকারের একটি কুঅভ্যাসে পরিণত হয়েছে
২ জুন ২০১৬, বৃহস্পতিবার,
গত ১লা জুন রাতে ব্যাচ ও জ্যেষ্ঠতার ভিত্তিতে নিয়োগের দাবীতে আন্দোলনরত নার্সরা স্বাস্থ্যমন্ত্রী মোহাম্মাদ নাসিমের বাসভবন ঘেরাও করার জন্য ধানমন্ডি ৩২ নম্বরে গেলে পুলিশের লাঠিচার্জে অর্ধশত নার্স আহত হওয়ার ঘটনার প্রতিবাদ জানিয়ে বাংলাদেশ জামায়াতে ইসলামীর সহকারী সেক্রেটারী জেনারেল ও সাবেক এমপি অধ্যাপক মিয়া গোলাম পরওয়ার আজ ২ জুন প্রদত্ত এক বিবৃতিতে বলেন, “আন্দোলনরত নার্সদের উপর সরকার পুলিশ দিয়ে হামলা চালিয়ে অর্ধশত নার্সকে আহত করার ঘটনা অন্যায় ও অমানবিক।

পুলিশ নার্সদের বেধড়ক লাঠিচার্জ করে এবং বুট দিয়ে লাথি মারে। পুলিশের পাশাপাশি সাদাপোষাকধারী একদল যুবকও নার্সদের মারপিট করে আহত করেছে। ইতোপূর্বেও সরকার দফায় দফায় নারীদের উপর ও আন্দোলনরত নার্সদের উপর লাঠিচার্জ করেছে। নারীদের উপর লাঠিচার্জ করা সরকারের একটি কুঅভ্যাসে পরিণত হয়েছে।

পুলিশের লাঠিচার্জ ও বুটজুতার লাথিতে তিনমাসের গর্ভবর্তী নার্স সালমা আক্তারের গর্ভপাত ঘটেগিয়েছে বলে জানিয়েছেন বাংলাদেশ ডিপ্লোমা বেকার নার্সে’স অ্যাসোসিয়েশনের সভাপতি বিনা আক্তার। এ নির্মম ঘটনায় দেশবাসী মর্মাহত। আমি আশা করি সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষ এ ঘটনার সুষ্ঠু ও নিরপেক্ষ তদন্ত করে দোষী ব্যক্তিদের বিরুদ্ধে যথাযথ আইনানুগ পদক্ষেপ গ্রহণ করে উপযুক্ত শাস্তি প্রদান করবেন।

গ্রাজুয়েট নার্সেস সোসাইটি ও ডিপ্লোমা বেকার নার্সেস অ্যাসোসিয়েশন বহুদিন যাবতই তাদের দাবী পূরণের জন্য আন্দোলন করে আসছে। তাদের ন্যায় সংগত দাবী বিবেচনায় নিয়ে আলাপ-আলোচনার মাধ্যমে তাদের আন্দোলনের অবসান ঘটানোর জন্য আমি সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষের প্রতি আহ্বান জানাচ্ছি।”