২১ সেপ্টেম্বর ২০১৯, শনিবার
Choose Language:

সর্বশেষ
চলতি বিষয়াবলি
পাঠদানের অনুমতি, অ্যাকাডেমিক স্বীকৃতি ও এমপিও বাতিল হচ্ছে: শূন্য পাস ও শিক্ষার্থী ভর্তি না হওয়া ৯৮টি কলেজ
৩১ জানুয়ারি ২০১৭, মঙ্গলবার,
উচ্চ মাধ্যমিক সার্টিফিকেট পরীক্ষা ২০১৬-তে ঢাকা শিক্ষা বোর্ডের অধীনে যে তিনটি কলেজ থেকে কোনো শিক্ষার্থী পাস করেনি, সেগুলোর শিক্ষকদের বেতনের সরকারি অংশ বা মান্থলি পে-অর্ডার (এমপিও) বাতিল হতে যাচ্ছে। কলেজ তিনটিতে কর্মরত শিক্ষকদের নামে ইস্যু করা কারণ দর্শানো নোটিশের জবাব পাওয়ার পর তাদের এমপিও বাতিল করা হবে। এ ছাড়া ২০১৫-১৬ শিক্ষাবর্ষ থেকে একাদশ শ্রেণীতে ভর্তির জন্য অনলাইনে আবেদনপদ্ধতি চালুর পর ৯৫টি কলেজে কোনো শিক্ষার্থী ভর্তিও হয়নি। এসব কলেজের শিক্ষকদেরও এমপিও বাতিল করা হচ্ছে। একই সাথে ওই ৯৮টি কলেজের পাঠদানের অনুমতি এবং অ্যাকাডেমিক স্বীকৃতি বাতিল করা হবে। এর আগে তাদের কারণ দর্শানোর নোটিশ দেয়া হয়েছে। আগামী ১০ কর্মদিবসের মধ্যে নোটিশের জবাব দিতে বলা হয়েছে কলেজ কর্তৃপক্ষকে। 
ঢাকা শিক্ষা বোর্ডের চেয়ারম্যান অধ্যাপক মাহবুবুর রহমান গতকাল নয়া দিগন্তকে শোকজ নোটিশ প্রদানের বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন। তিনি জানান, শুধু শূন্য পাস করা প্রতিষ্ঠানকেই নয়, গত বছর যেসব কলেজে অনলাইনে ভর্তির সময় কোনো শিক্ষার্থী ভর্তি হয়নি, এমন ৯৫টি প্রতিষ্ঠানকেও একই ধরনের নোটিশ দেয়া হয়েছে। অপ্রয়োজনীয় এসব শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের সব স্বীকৃতি বাতিল করা হবে। 
২০১৫-১৬ শিক্ষাবর্ষ থেকে একাদশ শ্রেণীতে ভর্তির জন্য অনলাইনে আবেদন চালু করে শিক্ষা মন্ত্রণালয়। ই-পদ্ধতির এ আবেদন প্রক্রিয়া নিয়ে অভিভাবক-শিক্ষার্থীরা হয়রানি হলেও নামসর্বস্ব বেসরকারি কলেজগুলোর একটি চিত্র পেয়েছে শিক্ষা বোর্ড কর্তৃপক্ষ। তাদের বিরুদ্ধে এবার আ্যাকশনে যাচ্ছে শিক্ষা বোর্ড। 
উচ্চ মাধ্যমিক সার্টিফিকেট পরীক্ষা ২০১৬-তে ঢাকা বোর্ডের অধীনে তিনটি কলেজে কোনো শিক্ষার্থী পাস করেনি। কলেজ তিনটি হচ্ছেÑ গাজীপুরের নয়ানগর মহিলা কলেজ, ফরিদপুরের নগরকান্দায় সৈয়দা সাজেদা চৌধুরী হাইস্কুল অ্যান্ড কলেজ, কিশোরগঞ্জের কালিয়াচরে আবুল কাশেম কলেজ। এ কলেজগুলো এমপিওভুক্ত।
অভিযোগ রয়েছে, ফরিদপুরের নগরকান্দায় ক্ষমতাসীন দলের প্রভাবশালী এক নেত্রীর নামে প্রতিষ্ঠিত সৈয়দা সাজেদা চৌধুরী হাইস্কুল অ্যান্ড কলেজে কয়েক বছর ধরেই খারাপ ফল করে আসছে। কলেজের গভর্নিং বডির সভাপতির দায়িত্বে থাকা ব্যক্তি ওই নেত্রীর দোহাই দিয়ে সব কিছুতেই পার পাচ্ছেন। কয়েক বছর ধরে পরীক্ষার ফল প্রকাশের সময় শিক্ষামন্ত্রী ব্যবস্থা নেয়ার কথা বললেও তা কার্যকর হয়নি। এবার শূন্য পাস করা প্রতিষ্ঠানগুলোকে কারণ দর্শাতে নোটিশ ইস্যু করা এবং পরে ব্যবস্থা নেয়া হবে বলে বোর্ড সূত্রে বলা হয়েছে। 
অনলাইনে ভর্তি পদ্ধতি চালুর পর শুধু ঢাকা বোর্ডের অধীনে তিন শতাধিক কলেজে একজন শিক্ষার্থীও ভর্তির আবেদন করেনি। এর মধ্যে আলোচ্য শিক্ষাবর্ষে কোনো শিক্ষার্থী ভর্তি হয়নি প্রায় শ’খানেক কলেজে। অথচ এসব কলেজের বেশির ভাগই রাষ্ট্রের সব সুযোগ সুবিধা নিচ্ছে। এসব কলেজের শিক্ষক-কর্মচারীরাও রাষ্ট্রীয় কোষাগার থেকে মোটা অঙ্কের বেতনভাতাও পাচ্ছেন। প্রতি মাসে তাদের নামে এমপিওর টাকা বরাদ্দ হচ্ছে। শিক্ষা বোর্ডে খোঁজ নিয়ে জানা গেছে, কোনো শিক্ষার্থী ভর্তি না হওয়া এসব কলেজের কয়েকটি ক্ষমতাসীন দলের নেতার নামে প্রতিষ্ঠিত। কোনো শিক্ষার্থী নেই অথচ এসব কলেজ সরকারের দেয়া সব সুবিধা নিচ্ছে বছরের পর বছর ধরে।
ঢাকা বোর্ড সূত্রে জানা গেছে, ২০১৬ সালের এইচএসসি পরীক্ষায় যেসব কলেজ থেকে কোনো শিক্ষার্থী পাস করেনি তাদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেয়ার সিদ্ধান্ত নেয়া হয়েছে। অনলাইনে একাদশ শ্রেণীতে ভর্তিপদ্ধতি চালু হওয়ার পর যেসব প্রতিষ্ঠানে কোনো শিক্ষার্থী ভর্তি হয়নি, এরূপ প্রতিষ্ঠানেরও পাঠদানের অনুমতি, অ্যাকাডেমিক স্বীকৃতি ও এমপিও বাতিলের পদক্ষেপ নেয়া হচ্ছে। তারই অংশ হিসেবে কারণ দর্শানোর নোটিশ পাঠানো হয়েছে। 
অনলাইনে ভর্তিপদ্ধতি চালুর পর বোর্ড কর্তৃপক্ষ নিশ্চিত হয়েছে তাদের অ্যাকাডেমিক স্বীকৃতি ও পাঠদানের অনুমতি নিয়ে কলেজ খুলে বসলেও আসলে তাদের কোনো শিক্ষার্থী নেই। এসব কলেজে কেউ পড়তেও আগ্রহী নয়। ঢাকা বোর্ড কর্তৃপক্ষ সরেজমিনে পর্যবেক্ষণ করে নিশ্চিত হয়েছে ২০১৫-১৬ শিক্ষাবর্ষে তিন শতাধিক কলেজে একজন শিক্ষার্থীও ভর্তি হতে অনলাইনে আবেদন করেনি। এর মধ্যে ৯৫টি কলেজে ২০১৫-১৬ শিক্ষাবর্ষে কোনো শিক্ষার্থী ভর্তি হয়নি। এসব প্রতিষ্ঠানকেও কারণ দর্শানোর নোটিশ দেয়া হয়েছে। শোকজের জবাব পাওয়ার পরই এদের ব্যাপারে চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত ও ব্যবস্থা নেয়া হবে বলে জানিয়েছেন বোর্ড চেয়ারম্যান অধ্যাপক মাহবুবুর রহমান। 
২০১৫-১৬ শিক্ষাবর্ষে কোনো শিক্ষার্থী ভর্তি হয়নি এমন ৯৫টি কলেজ হচ্ছেÑ বালুঘাট হাইস্কুল অ্যান্ড কলেজ, নাখালপাড়া হোসেন আলী হাইস্কুল অ্যান্ড কলেজ, হার্ভার্ড ইন্টারন্যাশনাল কলেজ, আইডিয়াল ল্যাবরেটরি কলেজ, হাক্কানী মিশন মহাবিদ্যালয়, কলেজ ফর অ্যাডভান্সড স্টাডিজ, নিউরাল কলেজ, ধানমন্ডি কলেজ, বাসাবো উচ্চমাধ্যমিক বালিকা বিদ্যালয়, ঢাকা এস এ বিএম কলেজ, নর্থসাউথ কলেজ, উত্তরা সাইন্স কলেজ, মেট্রোপলিটন মডেল কলেজ, লিডস কলেজ, চেতনা মডেল কলেজ, উইবট কলেজ, জাস্ট ইন্টারন্যাশনাল কলেজ, হ্যারিটেজ ইন্টারন্যাশনাল কলেজ, ইউরোপিয়ান কলেজ, ল্যান্ডমার্ক কলেজ, ইউনিভার্স কলেজ, লাইটহাউস কলেজ, আইকন কলেজ, ই. হক কলেজ, ইউনাইটেড গ্লোবাল কলেজ, সভরিন কলেজ, প্রিমিয়ার কলেজ, বিমস কলেজ, ঢাকা অক্সফোর্ড ইন্টারন্যাশনাল কলেজ, ব্লুমিং ফ্লাওয়ার ইন্টারন্যাশনাল কলেজ, আলোড়ন কলেজ, দেশ আইডিয়াল কলেজ, কম্বাইন্ড কমার্স কলেজ, ইউ ইউ ল্যাবরেটরি কলেজ, কে সি মডেল কলেজ, শ্যামলী আইডিয়াল কলেজ, অন্বেষা ইন্টারন্যাশনাল স্কুল অ্যান্ড কলেজ, দি এক্সিলেন্ট কলেজ, রেডিয়েন্ট কলেজ, সিসিইআর মডেল কলেজ, সেন্ট্রাল জেল (প্রাইভেট) কলেজ, অক্সফোর্ড কলেজ, ব্লু মাউন্টেন কলেজ, নবারুন কলেজ, প্রাইম স্কলার্স কলেজ, আল ফরুকান ইংলিশ হাইস্কুল অ্যান্ড গার্লস কলেজ, জে কে কলেজ, কেরানীগঞ্জের জাজিরা উচ্চ মাধ্যমিক বিদ্যালয়, রাজাপুর কহেলা বাহরাম মলিক উচ্চ মাধ্যমিক বিদ্যালয়, ধামরাইয়ের বঙ্গবন্ধু কলেজ, হাড়িনাল হাইস্কুল অ্যান্ড কলেজ, পুবাইল কমার্স কলেজ, ইঞ্জিনিয়ার হাবিবুর রহমান কলেজ, নয়ানগর মহিলা কলেজ, লেসন কমার্স কলেজ, আলহাজ ধনাই বেপারি মহিলা কলেজ, টিপু সুলতান কলেজ, ভাওয়াল মির্জাপুর পাবলিক কলেজ, বিজয় কলেজ, ইক্বরা কমার্স কলেজ, কাইমুন্নেসা কলেজ, আব্দুল আজিজ মিয়া আয়েশা খাতুন কলেজ, বাঁশগাড়ী কলেজ, মুন্সীগঞ্জ কলেজ, সমষপুর উচ্চ মাধ্যমিক বিদ্যালয়, মানিগঞ্জের মুক্তিযোদ্ধা মেমোরিয়াল কলেজ, বরুন্দি রাকিব আহমেদ কলেজ, অক্সফোর্ড একাডেমি, গোলাইডাঙ্গা উচ্চ মাধ্যমিক বিদ্যালয়, জান্না মডেল উচ্চ মাধ্যমিক বিদ্যালয়, কচুয়া পাবলিক উচ্চ মাধ্যমিক বিদ্যালয় ও কলেজ, মেজর জেনারেল মাহমুদুল হাসান উচ্চ মাধ্যমিক বিদ্যালয়, টাঙ্গাইলের মেজর মাহমুদুল হাসান হায়ার সেকেন্ডারি স্কুল, কাউলজানি কলেজ, পানকাটা ইসলামিয়া হায়ার সেকেন্ডারি স্কুল, মধুপুর বহুমুখী মডেল টেকনিক্যাল ইনস্টিটিউট অ্যান্ড কলেজ, কানাইপুর কলেজ, অকোটেরচর এস সি উচ্চবিদ্যালয় ও কলেজ, কবিরহাট পৌর মহিলা কলেজ, আলিয়াবাদ গিয়াসউদ্দিন আহমেদ কলেজ, মুক্তিযোদ্ধা প্রিন্সিপাল ড. আজিজুর রহমান কলেজ, আহমেদ আলী মৃধা কলেজ, টুঙ্গিপাড়ায় বর্ণী উচ্চ মাধ্যমিক বিদ্যালয়, গোহাইলকান্দি উচ্চ মাধ্যমিক বিদ্যালয়, ময়মনসিংহের ফুলপুরের বকশীমূল কলেজ, রিফ্লেম মডেল কলেজ, পাবিয়াজুরি হায়ার সেকেন্ডারি স্কুল, গৌরীপুর পাবলিক কলেজ, আনোয়ার আইডিয়াল কমার্স কলেজ, হাজীগঞ্জ উচ্চমাধ্যমিক বিদ্যালয়, অ্যাম্বিশন মডেল কলেজ, জামালপুরের বাটিকামারী মাধ্যমিক বিদ্যালয়, ইসলামপুরের এসএনসি আদর্শ কলেজ, ব্যারিস্টার আব্দুস সালাম তালুকদার কলেজ, বিষ্ণুপুর খন্দকার বারি কলেজ।
http://www.dailynayadiganta.com/detail/news/191875