২২ সেপ্টেম্বর ২০১৯, রবিবার
Choose Language:

সর্বশেষ
চলতি বিষয়াবলি
স্কুল নয়, পুড়লো শিক্ষার্থীদের মন
২৯ জানুয়ারি ২০১৭, রবিবার,
এ আমাদের কোটি টাকার স্কুল শুধু নয়, শ’ শ’ কোমলমতি শিক্ষার্থীর মন পুড়ে গেছে আগুনে। পুড়ে গেছে চরাঞ্চলের দরিদ্র পিছিয়ে পড়া জনগোষ্ঠীর আশা ও স্বপ্ন। এমনটাই জানালেন চরবাসী। অপরদিকে স্কুল পুড়ে ছাই হওয়ায় ৬শ’ শিক্ষার্থীর জীবন অনিশ্চয়তার মধ্যে পড়েছে। আগুনে পুড়ে গেছে বই খাতা, সার্টিফিকেটসহ নানা শিক্ষা সামগ্রী। তাই পুড়ে যাওয়া শিক্ষার্থী অভিভাবক ও চরবাসীর কান্নায় ভারি হয়ে উঠেছে তিস্তা, যমুনা, ব্রহ্মপুত্রের চরাঞ্চল। দুর্বৃত্তদের দেয়া আগুনে গাইবান্ধার সদর উপজেলার ব্রহ্মপুত্র নদ চরাঞ্চলের কুন্দেরপাড়ায় গণ-উন্নয়ন একাডেমি স্কুল অফিস কক্ষসহ ৭টি ক্লাস রুম পুড়ে গেছে। আগুনে আসবাবপত্র, শিক্ষা সরঞ্জাম, শিক্ষার্থীদের ২০ হাজার সার্টিফিকেট ভস্মীভূত হয়। এতে প্রায় কোটি টাকার সম্পদ পুড়ে গেছে। বৃহস্পতিবার সোয়া ১২টার দিকে আগুনের ঘটনা ঘটে বলে জানিয়েছেন গণ-উন্নয়ন একাডেমি হাইস্কুলের প্রধান শিক্ষক আসাদুজ্জামান।  স্কুল জ্বালিয়ে দেয়ার এই নাশকতার ঘটনার প্রতিবাদে চরাঞ্চলে নিরীহ দরিদ্র মানুষ ও স্কুলপড়ুয়া শিক্ষার্থীরা বিক্ষুব্ধ  হয়ে উঠেছে। অব্যাহতভাবে চলছে প্রতিবাদ সমাবেশ ও বিক্ষোভ। গণ-উন্নয়ন একাডেমির প্রধান শিক্ষক মো. আসাদুজ্জামান জানান, বেসরকারি উন্নয়ন সংস্থা গণ-উন্নয়ন কেন্দ্রের অর্থায়নে ২০০৩ সালে একাডেমি প্রতিষ্ঠিত হয়। বর্তমানে একাডেমিতে ৫৯৭ জন ছাত্র-ছাত্রী অধ্যয়নরত। বৃহস্পতিবার রাত সোয়া ১২টার দিকে হঠাৎ করে একাডেমিতে আগুন জ্বলে ওঠে। মুহূর্তে আগুন দাউ দাউ করে ওঠে। স্থানীয় লোকজন আগুন নেভাতে চেষ্টা চালিয়েও ব্যর্থ হয়। আগুনে অফিস কক্ষসহ ৭টি কক্ষ, আসবাবপত্র, শিক্ষা সরঞ্জাম পুড়ে ছাই হয়ে যায়। এ ছাড়া কক্ষের আলমারিতে রাখা শিক্ষার্থীদের ১২ বছরের অন্তত ২ হাজার স্কুল সার্টিফিকেটও পুড়ে গেছে।
তিনি জানান, সম্প্রতি স্থানীয় কিছু লোকজন স্কুলের কার্যক্রমে বাধা দিয়ে আসছিল। এ ছাড়া এলাকায় কিছু ব্যক্তি আরেকটি স্কুল প্রতিষ্ঠার পরিকল্পনা করছিল। তাছাড়া একাডেমির পাশের এলাকায় ব্যাপকভাবে মাদক, জুয়া, মদ ও যাত্রার নামে নগ্ন নাচ গানের আসর চলে আসছে। এ নিয়ে বৃহস্পতিবার কুন্দেরপাড়া স্কুলের মাঠে এক সুধী সমাবেশ হয়। এসব কারণে দুর্বৃত্তরা ক্ষিপ্ত হয়ে হাইস্কুলে আগুন দিয়ে পুুড়িয়ে দেয় বলে ধারণা করা হচ্ছে।
কামারজানি ইউপি চেয়ারম্যান আব্দুস সালাম জানান, ব্রহ্মপুত্র নদ চরাঞ্চলের কুন্দেরপাড়ায় প্রতিষ্ঠিত গণ-উন্নয়ন একাডেমি হাইস্কুলটি সুষ্ঠুভাবে পরিচালিত হয়ে আসছিল। নারী শিক্ষার মান ও আবাসিক সুবিধা থাকায় চরাঞ্চলের শিক্ষার আলো ছড়াচ্ছে হাইস্কুলটি। কিন্তু কে বা কারা শত্রুতা করে আগুন দেয়।
সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) একেএম মেহেদী হাসান জানান, খবর পেয়ে পুড়ে যাওয়া হাইস্কুল পরিদর্শন করা হয়েছে। আগুনের ঘটনা তদন্ত করে দেখা হচ্ছে। এ ছাড়া দুর্বৃত্তদের শনাক্ত করে আইনের আওতায় আনা হবে।
http://www.mzamin.com/article.php?mzamin=51228&cat=3/%E0%A6%B8%E0%A7%8D%E0%A6%95%E0%A7%81%E0%A6%B2-%E0%A6%A8%E0%A7%9F,-%E0%A6%AA%E0%A7%81%E0%A7%9C%E0%A6%B2%E0%A7%8B-%E0%A6%B6%E0%A6%BF%E0%A6%95%E0%A7%8D%E0%A6%B7%E0%A6%BE%E0%A6%B0%E0%A7%8D%E0%A6%A5%E0%A7%80%E0%A6%A6%E0%A7%87%E0%A6%B0-%E0%A6%AE%E0%A6%A8