১১ ডিসেম্বর ২০১৯, বুধবার
Choose Language:

সর্বশেষ
ট্রাইবুনাল
বিশ্বের বিভিন্ন দেশে মীর কাসেম আলীর গায়েবানা জানাযা ও প্রতিবাদ সমাবেশ
৫ সেপ্টেম্বর ২০১৬, সোমবার,
বিশ্বের বিভিন্ন দেশে মীর কাসেম আলীর গায়েবানা জানাযা ও প্রতিবাদ সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়েছে। এ সময় বক্তারা মীর কাসেম আলীকে শহীদ উপাধি দিয়ে বলেন, শহীদ মীর কাসেম আলী তার অবদানের জন্য  দেশ ও প্রবাসে জনগণের হৃদয়ে চিরদিন স্মরণীয় হয়ে থাকবেন। তারা বলেন,  দেশকে স্বনির্ভর ও বেকারত্বমুক্ত করার প্রচেষ্টায় এক অক্লান্ত সৈনিক, মীর কাসেম আলীকে হত্যার মাধ্যমে দেশের শিল্প, স্বাস্থ্য খাত ও অর্থনীতিকে ক্ষতিগ্রস্ত করার সদূরপ্রসারী ষড়যন্ত্রের নীলনকশা বাস্তবায়ন করছে।  
নিউ ইয়র্ক : নিউ ইয়র্কের চার্চ-ম্যাকডোনাল্ড এভিনিউতে অনুষ্ঠিত হলো জামায়াতে ইসলামীর  কেন্দ্রীয় নির্বাহী পরিষদ সদস্য মীর কাসেম আলীর গায়েবানা জানাযা নামায ও প্রতিবাদ সভা। গত শনিবার স্থানীয় সময় সন্ধ্যা ৬টায় এ গায়েবানা জানাযা নামায ও প্রতিবাদ সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়। এতে বাংলাদেশী-আমেরিকান ছাড়াও অন্যান্য মুসলিম কমিউনিটির শতশত পুরুষ-মহিলা অংশগ্রহণ করেন। এতে নামাযের ইমামতি করেন ইসলামিক স্কলার, মজলিসে শুরা অফ নিউইর্য়ক সভাপতি শায়খ আব্দুল হাফিদ। 
জানাযা পূর্ব সংক্ষিপ্ত প্রতিবাদ সভায় বক্তারা বলেন,  কোনো অপরাধ নয়, জাতিকে  নেতৃত্বশূন্য করতেই আদর্শিক কারণেই বাংলাদেশের বিশিষ্ট শিল্প উদ্যোক্তা মীর কাসেম আলীকে শহীদ করা হয়েছে। বক্তারা মীর কাসেম আলীকে শহীদ উপাধী দিয়ে বলেন, শহীদ মীর কাসেম আলী তার অবদানের জন্য দেশ ও প্রবাসে জনগণের হৃদয়ে চিরদিন স্মরণীয় হয়ে থাকবেন। তারা আরো বলেন, আজকে শহীদ মীর কাসেম আলীর গায়েবানা নামাযে জানাযায় শতশত  লোক শরীক হওয়া-প্রমাণ করে যে, তিনি একজন নির্দোষ মানুষ ছিলেন। 
বাংলাদেশী আমেরিকার প্রগ্রেসিভ  ফোরামের সভাপতি মুক্তিযোদ্ধা অধ্যাপক নূরুল ইসলামের সভাপতিত্বে ও  সেক্রেটারি মাহবুবুর রহমানের পরিচালনায় অনুষ্ঠিত হয় প্রতিবাদ সমাবেশে বক্তব্য রাখেন, ইসলামিক স্কলার আব্দুল হাফিদ, ইয়েমেনী-আমেরিকান কমিউনিটি নেতা মোহাম্মদ নাজি, ম্যাস নিউইয়র্ক প্রতিনিধি মোহাম্মদ, মীর কাসেম আলীর  ছোট ভাই মীর মাসুম আলী, মানবাধিকার  নেতা মাহতাবউদ্দিন আহমেদ, আব্দুল আজিজ ভূইঁয়া, শিক্ষাবিদ আবুসামীহাহ সিরাজুল ইসলাম, কমিউনিটি  নেতা আব্দুল্লাহ আল আরিফ প্রমুখ।  
তুরস্ক : মীর কাসেম আলীর শাহাদাৎ কবুলের জন্য তুরস্কে গত শনিবার রাতেই তাৎক্ষণিক দোয়া অনুষ্ঠান ও গতকাল বিভিন্ন শহরে গায়েবানা জানাযা হয়। তাৎক্ষণিক প্রতিবাদ সমাবেশ ও দোয়ার আয়োজন করে তুরস্কের ইসলামী ছাত্রসংগঠন AGD Genel Merkey - Anadolu Gençlik Derneği (Anatolian Youth Association). 
 দোয়া অনুষ্ঠানে বক্তব্য রাখেন সংগঠনের কেন্দ্রীয় সভাপতি সালেহ তুরহান। তিনি তার বক্তব্যে বলেন, শহীদেরা আমাদের প্রেরণা। বাতিল শক্তি যতই ষড়যন্ত্র করুক না  কেন আমরা ন্যায় ও সত্যের ভিত্তিতে একটি নতুন দুনিয়া প্রতিষ্ঠা করবই ইনশাল্লাহ। এর পর কুরআন  তেলাওয়াতের মধ্য দিয়ে দোয়া মুনাজাত পরিচালনা করেন এই ছাত্র নেতা। 
জাপান:  সেভহিউম্যানিটি ইন বাংলাদেশ, জাপান’র উদ্যোগে জাপান প্রবাসীদের উদ্যোগে প্রতিবাদ সভা ও গায়েবানা জানাযা গতকাল বিকাল ৫টায় সাইতামা সিটির কসিগায়ার একটি  রেস্টুরেন্টে অনুষ্টিত হয়।
বিশিষ্ট ব্যবসায়ী ও জাপান কমিঊনিটির শীর্ষ নেতা হাফেজ আলাউদ্দিনের সভাপতিত্বে সাবেক ছাত্রনেতা ও ব্যবসায়ী আব্দুল মোমেনর পরিচালনায় সমাবেশে বক্তব্য রাখেন কমিঊনিটি লিডার সাবেক ছাত্রনেতা এটিএম মিছবাহুল কবির, ইঞ্জিনিয়ার সিদ্দিকী সোহাগ, প্রবাসে বাংলাদেশ ডটকম সম্পাদক আতিকুর রহমান, মাওলানা আশিক উল্লাহ, কমিঊনিটি লিডার মনির হোসেন, ইঞ্জিনিয়ার আব্দুল্লাহ আল মারুফ,আবু তাহের দুলাল প্রমুখ।
বক্তারা বলেন মীর কাসেম আলী বাংলাদেশ ইসলামী ছাত্রশিবিরের প্রতিষ্টাতা  কেন্দ্রীয় সভাপতি, যার দেখানো পথ ধরে লাখ লাখ স্কুল-কলেজ বিশ্ববিদ্যালয় পড়ুয়া ছাত্র-ছাত্রী আর যুবকেরা  পেয়েছে আলোর দিশা। যিনি ইবনে সিনা ট্রাস্ট ও দিগন্ত টিভি ও মিডিয়া কর্পোরেশনের কর্ণধার,খাতিমান অর্থনীতিবিদ, একজন মহান সফল শিল্পোদ্যোক্তা,ও ইসলামী চিন্তাবিদ। শিক্ষা, স্বাস্থ্য,মিডিয়া,সেবা, অর্থনীতিসহ বহুমুখী সামাজিক কাজের মাধ্যমে বাংলাদেশের উন্নতিতে তার বিরাট অবদান রয়েছে। বাংলাদেশে ইসলামী ব্যাংক প্রতিষ্ঠার অন্যতম মুল উদ্যোক্তা মীর কাসেম আলী। এই ব্যাংক শুধু বাংলাদেশ নয়, বিশ্বের মধ্যে একটি সফল বাণিজ্যিক ব্যাংক হিসেবে স্বীকৃতি লাভ করেছে এবং বাংলাদেশের প্রান্তিক জনগোষ্ঠীর উন্নতিতে ভূমিকা রাখাসহ বাংলাদেশের  রেমিটেন্সের অন্যতম  সেক্টর গার্মেন্টস শিল্প বিকাশে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করে আসছে। দেশকে স্বনির্ভর ও  বেকারত্বমুক্ত করার প্রচেষ্টায় এক অক্লান্ত সৈনিক, মীর কাসেম আলীকে হত্যার মাধ্যমে  দেশের শিল্প, স্বাস্থ্য খাত ও অর্থনীতিকে ক্ষতিগ্রস্ত করার সদূরপ্রসারী ষড়যন্ত্রের নীলনকশা বাস্তবায়ন করছে। আধিপত্যবাদী শক্তি ও তাদের এদেশীয় কুচক্রী এজেন্টরা। 
প্রতিবাদ সমাবেশ  শেষে গায়েবানা জানাযা বায়তুল আমান জামে মসজিদে অনুষ্টিত হয়। মীর কাসেম আলীর জন্য মহান আল্লাহর কাছে তাঁর শাহাদাতের সর্বোচ্চ মর্যাদা কামনায়  দোয়া ও গায়েবানা জানাযা  পরিচালনা করেন প্রিন্সিপাল মাওলানা হাফেজ ছাবের আহমদ।
http://www.dailysangram.com/post/249938-%E0%A6%AC%E0%A6%BF%E0%A6%B6%E0%A7%8D%E0%A6%AC%E0%A7%87%E0%A6%B0-%E0%A6%AC%E0%A6%BF%E0%A6%AD%E0%A6%BF%E0%A6%A8%E0%A7%8D%E0%A6%A8-%E0%A6%A6%E0%A7%87%E0%A6%B6%E0%A7%87-%E0%A6%AE%E0%A7%80%E0%A6%B0-%E0%A6%95%E0%A6%BE%E0%A6%B8%E0%A7%87%E0%A6%AE-%E0%A6%86%E0%A6%B2%E0%A7%80%E0%A6%B0-%E0%A6%97%E0%A6%BE%E0%A7%9F%E0%A7%87%E0%A6%AC%E0%A6%BE%E0%A6%A8%E0%A6%BE-%E0%A6%9C%E0%A6%BE%E0%A6%A8%E0%A6%BE%E0%A6%AF%E0%A6%BE-%E0%A6%93-%E0%A6%AA%E0%A7%8D%E0%A6%B0%E0%A6%A4%E0%A6%BF%E0%A6%AC%E0%A6%BE%E0%A6%A6-%E0%A6%B8%E0%A6%AE%E0%A6%BE%E0%A6%AC%E0%A7%87%E0%A6%B6